আমরা মানুষ, হিন্দু ,খ্রীষ্টান ,বৌদ্ধ–মুসলমান         

সব ভেদাভেদ ভুলে মোরা ‌গাহি সাম‍্যের গান।         

এক ই মোদের রক্ত মাংসে ‌গড়া দেহখান         

এক ই মাটির তৈরি মোরা ‌, মাটির সন্তান।
          কেউ বলে ঈশ্বর,আল্লাহ-কেউবা ভগবান         

একই সে-ই সৃষ্টিকর্তা পরম মেহেরবান।         

সবাই সমান তাঁর ই কাছে–নয়‌ কেহ তাঁর পর         

তাঁর ই দয়ায় বেঁচে থাকি সারা জীবন ভর।
তবে কেনো আজ মানুষে মানুষে এতোটাই বিভেদ?         

ধনী-গরীব,উঁচু-নিচু– এতোটাই প্রভেদ?         

মানুষ হয়ে মানুষের ই কাড়ছে‌ অধিকার?         

দিকে দিকে কেন লাঞ্ছিত আজ মানবাধিকার?             

বড়ো মানুষ ছোট মানুষের কেড়ে নেয় অন্ন!         

এতো টুকু ঠাঁই পায় নাকো– ওরা বাঁচার জন্য।         

স্বার্থ আর লোভের বেদী মূলে হচ্ছে বলিদান         

ঘাতকের অস্ত্র কেড়ে নিচ্ছে কতো তাজা তাজা প্রাণ!!                

এক ই লাল‌ রক্তে গড়া সকল মানুষ ভাই ভাই           

সব ভেদাভেদ ভুলে এসো‌ সাম‍্যের গান গাই।         

দূর করে ফেল হিংসা-বিদ্বেষ, ঘুচাও‌ মনের ক্লেদ         

সাম‍্য মৈত্রীর গাও আজি গান– দূর করো‌ বিভেদ।
           মানুষ হয়ে মানুষেরে আর করোনা কভু হেলা,           

মজলুমের জীবন নিয়ে খেলোনা নিষ্ঠুর খেলা।           

মানুষ! মানুষের ভাই হয়ে দাও মানুষের ‌সম্মান-         

এক সাথে আজ সমস্বরে গাও–মানবতার জয়গান।                     

সাম‍্য, মৈত্রীর বন্ধনে যবে পৃথিবী বাঁধা রবে সতত:           

এই বিশ্বে শান্তির চির-সুবাতাস রইবে সুপ্রতিষ্ঠিত!!!

Previous articleআমার বুকে তুমি- নাজিয়া আফরিন
Next articleতোমাতে আমি- নাজিয়া আফরিন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here